Wednesday, December 7, 2022
spot_img
spot_img
Homeখেলাদুজনেরই আদর্শ এবং উন্নয়ন আমার রাজনীতির অনুপ্রেরণা জোগায়। 

দুজনেরই আদর্শ এবং উন্নয়ন আমার রাজনীতির অনুপ্রেরণা জোগায়। 

নির্বাচন আসলেই কেন বারবার মনে পড়ে গনিখান চৌধুরীর নাম। ডান-বাম রাজনৈতিক দলগুলি নির্বাচনের মুখে গনিখানকে সামনে রেখে প্রচার চালানো শুরু করে বরাবর। এই চিত্র দেখা গিয়েছে মালদার নির্বাচনে রাজনৈতিক প্রচারে।

কিন্তু মালদা সেই গনিখানের কংগ্রেস দুর্গ এখন দুর্বল। নির্বাচনের সময় শুধু গনিখানের নাম করে ভোট চাইলেই হবে না, কংগ্রেস নেতাদের গনিখান চৌধুরীর মতোন উন্নয়নের ইমেজ রাখতে হবে। যেটা শুধুমাত্র পেরেছে তৃণমূল নেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি । এমনটাই বলছেন তৃণমূলের জেলা সভাপতি তথা রাজ্যসভার সাংসদ মৌসুম নূর। তিনি প্রয়াত গনিখান চৌধুরীর ভাগ্নি।

কোতোয়ালির গনিখানের পাসাদে গেলেই তৃণমূল নেত্রী মৌসুম নূরের নিজস্ব দলীয় কার্যালয়ে দেখা যাবে একদিকে মামা গনিখান চৌধুরী ছবি। পাশাপাশি রয়েছে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির ছবি। আসলে তাঁর কাছে দুজনেই আইকন। উন্নয়নের উদ্যোগ এই দুজনের মধ্যেই রয়েছে। তাই মামার পাশাপাশি মুখ্যমন্ত্রীর নীতি আদর্শকে অনুসরণ করেই তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন। সরাসরি তার সাথে কথা বলে এমনটাই জানালেন তৃণমূল সাংসদ মৌসম নূর। তিনি বলেন,য় এখন নির্বাচন চলছে।

আর নির্বাচনী প্রচারে সংযুক্ত মোর্চার জোটের প্রার্থীরা মামা গনিখানের নাম করে প্রচার করছেন । কিন্তু এখন তো সেই কংগ্রেস নেই। গনি মামার আমলে কংগ্রেস যতটা মজবুত ছিল, এখন সেই কংগ্রেস একেবারে দুর্বল হয়ে গিয়েছে। রাজ্যে এখন সাম্প্রদায়িক শক্তি ভর করেছে। আর মনে রাখতে হবে বিজেপি একটা সাম্প্রদায়িক দল।

তাদের একমাত্র পরাস্ত যদি করতে পারেন সেটাই হলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। তাই আমার কাছে মামার আদর্শ এবং মুখ্যমন্ত্রী উন্নয়ন একই বলে মনে হয়েছে। উনারা মানুষের জন্য কাজ করে চলেছেন। যেটা হয়তো এখনও অন্য দলের নেতারা ভাবেন না। শুধু ভোট পাওয়ার লক্ষ্যে ব্যবহার হয় মামা গনিখান চৌধুরী নাম। কিন্তু মানুষ তো এখন অনেক সচেতন এবং বুঝতে শিখেছে। যেদিকে উন্নয়ন সেদিকেই মানুষ যাবে, এটাই বাস্তব।
বলাবাহুল্য, একসময় কেন্দ্রীয় রেলমন্ত্রী ছিলেন প্রয়াত কংগ্রেস গনিখান চৌধুরী । তার আগেও রাজ্য কংগ্রেসের সরকার থাকাকালীন বেশ কয়েকটি মন্ত্রীর দায়িত্ব সামলেছেন গণিখান সাহেব । মানুষের কাছে গনিখান একজন আইকন। তাই নির্বাচনের সময় গণি বিনে গীত দেখা যায় না অনেক নেতাদের মধ্যে, এমন বলছেন জেলা তৃণমূল নেত্রী মৌসুম নূর।

বিধানসভা নির্বাচন প্রসঙ্গে মৌসুম নূর বলেন, নির্বাচনের সময় গনিমামার নাম করে কংগ্রেস। এটা করে মানুষের মন পাওয়া যাবে না। এর জন্য মামা গনিখানের মতো উন্নয়ন করে দেখাতে হবে। যেটা করতে পেরেছে শুধুমাত্র তৃণমূল সুপ্রিমো তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। উনার আদর্শ এবং উন্নয়ন দেখেই আমি তৃণমূলে যোগ দিয়েছিলাম। কিন্তু এখন কংগ্রেসের মুখে মামার নাম মানায় না।

কারণ, কংগ্রেস ও বামফ্রন্ট এখন সেই জায়গায় নেই। রাজ্যে বিজেপির মত সাম্প্রদায়িক শক্তিকে হারাতে একমাত্র তৃণমূলই পারবে । গনি মামার মতোন তৃণমূল নেত্রী মমতা ব্যানার্জি পেরেছেন রাজ্যে উন্নয়নের জোয়ার আনতে । তাই আমি আজও মামা গনিখান চৌধুরী এবং মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি দুজনেরই ছবি কাছে রাখি। কারণ, দুজনেরই আদর্শ এবং উন্নয়ন আমার রাজনীতির অনুপ্রেরণা জোগায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments