Friday, July 12, 2024
spot_img
spot_img
Homeখবরঅতি শীঘ্রই পরিচালক সমীর দাস বৈরাগ্যের নতুন ছবি সাজবদল ছবির শুটিং শুরু...

অতি শীঘ্রই পরিচালক সমীর দাস বৈরাগ্যের নতুন ছবি সাজবদল ছবির শুটিং শুরু হতে চলেছে।

অতি শীঘ্রই পরিচালক সমীর দাস বৈরাগ্যের নতুন ছবি সাজবদল ছবির শুটিং শুরু হতে চলেছে।অতি শীঘ্রহ পরিচালক সমীর দাস বৈরাগ্যের নতুন ছবি সাজবদলের শুটিং শুরু হতে চলেছে, সাজবদল ছবিতে কিছু গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রে দেখা যাবে আগমনী প্রামাণিক, খরাজ মুখোপাধ্য়ায়, অমৃতেন্দু কর, দেবশিস গঙ্গোপাধ্য়ায়, সৌমেন জানা, শুভব্রত বন্দ্য়োপাধ্য়ায়, রোহান গামা মীর, মীনাশ্রী সরকারকে। সাজবদল ছবির গল্প লিখেছেন পরিচালক সমীর দাস বৈরাগ্য।সাজবদল ছবির চিত্র পরিচালক রফিকুল ইসলাম। ছবির চিত্রনাট্য ও সংলাপ লিখেছেন অভিজিৎ রায় এবং সঙ্গীত পরিচালনার দায়িত্ব সামলেছেন সন্দীপ চৌধুরী ও গান লিখেছেন পরম ভট্টাচার্য। এই ছবিতে গান গেয়েছেন সুরজিৎ চট্টোপাধ্য়ায়, সোহেলী চক্রবর্তী ও রানা প্রামাণিক।সাজবদল এই ছবির গল্পে উঠে আসতে চলেছে গ্রামের সামাজিক এক পরিস্থিতির কথা এবং এই ছবিতে বেশ অন্য়রকম ভাবে দেখা মিলবে অভিনেতা খরাজ মুখোপাধ্য়ায়ের। প্রসঙ্গত কিছুসময় আগে, নিজের জীবনের কঠিন সময়ের কথা প্রকাশ্যে এনেছিলেন খরাজ মুখোপাধ্য়ায়। খরাজ বাবু জানিয়েছিলেন, তাঁর বাবা বেশ কড়া স্বভাবের, পড়াশোনার ওপর অত্যন্ত জোর দিতেন, কিন্তু মা চাইতেন ছেলে পড়াশোনার বাইরে পরিচিত হোক সংস্কতির সঙ্গেও, তাই গানের স্কুলে ভর্তি করিয়েছিলেন ছেলেকে, কিন্তু ছেলেকে গান শেখানোর ইচ্ছা পূরণ হয়নি, পরিবারের চাপে বন্ধ হয়ে যায় গানের ক্লাসে যাওয়া, তাঁর সাফল্য দেখে যেতে পারেননি মা। সেই আফশোস এখনও রয়েছে ছেলে খরাজ মুখোপাধ্যায়ের। খরাজ আরও বলছিলেন, ‘মায়ের চেয়ে বড় শিক্ষক আর কেউ হয় না, মা শাসন করতেন ঠিকই কিন্তু ভীষণ শান্ত আর মিষ্টি স্বভাবের মানুষ, কখনও কাউকে মায়ের নামে খারাপ কথা বলতে শুনিনি, মা ভীষণ শিল্পীমনস্ক মানুষ। আমার জীবনের সাফল্যটা উনি দেখে যেতে পারলেন না। এখন যদি মা বেঁচে থাকতেন, আমি ওনার পা মাটিতে পড়তে দিতাম না, মাকে অল্পবয়সেই হারান খরাজ। অভিনেতা বলেছিলেন, মায়ের পর আমার জীবনের কমরেড, আমার সঙ্গী হলেন আমার স্ত্রী, তিনি কখনও আমার মা, কখনও বোন, কখনও বন্ধু আবার কখনও প্রেমিকা, আমি বিশ্বাস করি, প্রত্যেক সফল পুরুষের পিছনে একজন করে সফল নারী থাকেন, আমার ক্ষেত্রে সেটি আমার স্ত্রী। এখনও পর্যন্ত আমি যা রোজগার করি, সব টাকাই আমি নিয়ে এসে আমার স্ত্রীর হাতে তুলে দিই, ও সমস্ত গুছিয়ে রাখে। মায়ের পর আমার জীবনের কমরেড, আমার সঙ্গী হলেন আমার স্ত্রী, তিনি কখনও আমার মা, কখনও বোন, কখনও বন্ধু আবার কখনও প্রেমিকা। আমি বিশ্বাস করি, প্রত্যেক সফল পুরুষের পিছনে একজন করে সফল নারী থাকেন, আমার ক্ষেত্রে সেটি আমার স্ত্রী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments